Home গোপনীয় কেন ওরাল সেক্স ক্ষতিকারক জেনে নিন...

কেন ওরাল সেক্স ক্ষতিকারক জেনে নিন…

কেন ওরাল সেক্স ক্ষতিকারক জেনে নিন

অত্যাধিক ওরাল সেক্সের ফলে হতে পারে ব্যাকটেরিয়াল সংক্রমণ, কারণ ওয়াল সেক্সের মাধ্যমে মেয়েদের যৌনাঙ্গে ব্যাকটেরিয়াল ভ্যাজিনোসিস বাসা করে যাকে চিকিৎসা বিজ্ঞানের পরিভাষায় বলা হয় বিভি।

তবে এই বিভি অনেক সময় হয় উপসর্গহীন। অনেকেই ভালো করে মুখ ধোয় না ফলে মুখে থাকে অনেক বাজে ব্যাকটেরিয়া, ফলে মুখের লালা থেকে হয় জীবানুর সংক্রমণ, যা যোনিতে গেলে ক্ষতিকারক হতে পারে।
ব্যাকটেরিয়াল ভ্যাজিনোসিস বা বিভি সিরিয়াস রোগ নয় তবে যেসব বিভিতে আক্রান্ত হলে অন্যান্য যৌনরোগ হওয়ার সম্ভাবনা থাকে, সংক্রমণ দেখা দিতে পারে মূত্রনালিতে।
সন্তানসম্ভবা মহিলাদের ক্ষেত্রেও মারাত্মক ক্ষতিকারক এই সংক্রমণ।

ব্যাকটেরিয়াল ভ্যাজিনোসিস হলে যোনি থেকে নিঃসৃত রসে থাকে আঁশটে গন্ধ। যোনি থেকে যে স্বাভাবিক রস বের হয় তার রঙ এবং ঘনত্ব পালটে যায় বিভি হলে। যোনি রস হয় পাতলা জলের মত এবং রঙ থাকে ঘোলাটে সাদা।

যোনি রসের নমুনা পরীক্ষা করে বিভি হয়েছে কি না জানা যায়।
যদি বিভি সংক্রমণ হয় সেক্ষেত্রে অ্যান্টিবায়োটিক ট্যাবলেট, জেল অথবা ক্রিম ব্যবহার করলে সংক্রমণ কমে যায়।
বিভি হওয়ার পেছনে কারণ গুলি হল –
অত্যধিক সেক্স করা, দীর্ঘদিন সেক্স না করা,একাধিক সঙ্গী পরিবর্তন,
জন্মনিরোধকের অত্যধিক ব্যবহার,
যোনিপথে সাবানের ব্যবহার ইত্যাদি।
প্রত্যেক ছয় মাস অন্তর তাই পেলভিকের পরীক্ষা অবশ্যই করান, তাহলেই বুঝতে পারবেন আপনি এই সংক্রমণের শিকার কি না।

- Advertisment -

জনপ্রিয়

সরস্বতী নাট্যোৎসবের দ্বিতীয় পর্যায় অনুষ্ঠিত হতে চলেছে উত্তর চব্বিশ পরগনার অশোকনগরে

করোনা প্রকোপ খানিক শান্ত হতে না হতেই এই শীতের মরসুমে নাট্যপিপাসু দর্শকদের কাছে সবচেয়ে আনন্দের বিষয় কলকাতা সহ পশ্চিমবঙ্গের বিভিন্ন প্রান্তে অনুষ্ঠিত হওয়া নাট্যোৎসবে...

“পাই” এর উৎসবে মাতলো কলকাতা। ২০ থেকে ২৬ শে জানুয়ারি পর্যন্ত চললো সেলিব্রেশন

কলকাতায় গল্ফগ্রীনে পুরো সপ্তাহ ধরে চললো "পাইয়ের উৎসব"। "দ্য পাই হাউসের" পক্ষ থেকে আন্তর্জাতিক পাই ডে উপলক্ষে ২০ থেকে ২৬ শে জানুয়ারি সেলিব্রেট করা...

কলকাতা প্রেক্ষাপট এর নাট্য – পার্বণ

ভারতীয় সংকৃতির পীঠস্থান আমাদের এই বাংলা । নাট্যচর্চা বাংলার তথা ভারতীয় সংস্কৃতির এক অভূতপূর্ব ধারাকে বহন করে নিয়ে চলেছে প্রাচীনকাল থেকেই । বরাবরই বিভিন্ন...

সুযোগ পেলে আমিও স্বাস্থ্য সাথীর কার্ড করাবো” বললেন দিলীপ ঘোষ

মাননীয় মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের উন্নয়নে এবার সামিল রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। স্বাস্থ্য সাথীর কার্ড করেছেন দিলীপ ঘোষ ও তার পরিবার এমনই দাবি করলেন বীরভূম...