Home দেশ খনি থেকে ওঠার পরেই শিকার হয় ধর্ষনের কিশোরীরা। জেনে নিন চিত্রকুটের গোপন...

খনি থেকে ওঠার পরেই শিকার হয় ধর্ষনের কিশোরীরা। জেনে নিন চিত্রকুটের গোপন কথা…

করোনা সংক্রমণের ফলে শুধু যে মানুষের প্রাণহানি হচ্ছে তাই নয়, দরিদ্র পরিবার গুলো শোচনীয় অবস্থার মধ্যে দিয়ে দিন অতিবাহিত করতে, কারও কাজ নেই, তো কেউ কাজ করতে গিয়ে ঘৃন্য অভিজ্ঞতার মুখোমুখি হচ্ছে।
উত্তরপ্রদেশের একটি ঘটনা যা পেটের জ্বালায় মানুষের করুণ জীবনের বাস্তব কাহিনি তুলে এনেছে সকলের সামনে।

সেখানকার কিশোরীরা লকডাউন পরিস্থিতিতে সামান্য কিছু মজুরির বিনিময়ে কাজ করছে খনিতে। প্রাপ্য মজুরি তো পাচ্ছেই না তারা, তার উপর তাদের ল ধর্ষণের শিকার হতে হচ্ছে।
চূড়ান্ত অমানবিক, ঘৃন্য ঘটনার কথা উঠে এসেছে
যোগী রাজ্যে।

সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমে জানানো হয়েছে বুন্দেলখণ্ডের চিত্রকূট অঞ্চলে প্রাপ্য মজুরির টাকা পাওয়ার জন্য কিশোরীদের ধর্ষণ করা হচ্ছে তাতে আপত্তি জানালে হুমকি দেওয়া হচ্ছে পাহাড় থেকে ছুড়ে ফেলার।

ঘটনাটি জানার পর আঁতকে উঠেছে গোটা দেশবাসী। রাজধানী দিল্লি থেকে ৭০০ কিলোমিটার দূরে এই এলাকায় বেশিরভাগ আদিবাসী জনগোষ্ঠীর বাস। তাদের প্রধান জীবিকা এলাকার খনি ও খাদানে কাজ করা, লকডাউনে সে কাজ বন্ধ, তবে কিছু মানুষ অবৈধ খনন শুরু করেছে আর পেটের দায়ে সেখানে কাজে যুক্ত হওয়া হচ্ছে কিশোরীদের
সারা দিন কাজ করার পর দেওয়া হচ্ছে ১০০-১৫০ টাকা। কাজ শেষ করার পর তাদের উপর নির্মম নির্যাতন করা হচ্ছে। তার পর মিলছে টাকা।

পরিবারের লোকেরা এসব বুঝলেও তারা নিরুপায় হয়ে বাড়ির মেয়েদের কাজে পাঠাচ্ছে।
খনিতে কাজ করা এক কিশোরীর মা সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমকে জানিয়েছেন, ৩০০-৪০০ টাকা রোজ দেবে বলে জানানো হলেও দেওয়া হয় ১৫০-২০০ টাকা । মেয়ে বাড়ি ফিরলে তারা সব অত্যাচারের কথাই জানতে পারে, তবু কিছু করার নেই, অসহায় পরিবার, যেখানে তার স্বামী অসুস্থ, চিকিৎসার খরচ, এতগুলো মানুষের খিদের জ্বালা এসবের কাছে নিরুপায় হয় বাড়ির মেয়েকে পাঠাতেই হয় নরকে।
বাড়ির কথা ভেবে কিশোরীরাও শেষ করে দেয় তাদের আশা, জীবনের স্বপ্ন, ক্রমাগত ভোগ করে চলে নির্যাতন।
এক নির্যাতিত নাবালিকা জানিয়েছে কাজে কম টাকা দেওয়া হয় তারপর ম্যানেজার থেকে ড্রাইভারদের খুশি করতে হয়।
চিত্রকূটের জেলাশাসক শেশমণি পান্ডে
ঘটনার কথা ছড়ানোর পর বেআইনি খনি এবং খাদানগুলির অবস্থা খতিয়ে দেখার নির্দেশ দিয়েছেন।

কিন্তু স্থানীয় বাসিন্দারা জানেন তাদের দারিদ্রের সুযোগ নিয়ে নির্মম এই অত্যাচার চলবেই। তাই তারাও মেনে নিয়েছে সবটাই। এক সুস্থ স্বাভাবিক জীবনযাপনের আশা হয়ত তারা ছেড়েই দিয়েছে।

- Advertisment -

জনপ্রিয়

সরস্বতী নাট্যোৎসবের দ্বিতীয় পর্যায় অনুষ্ঠিত হতে চলেছে উত্তর চব্বিশ পরগনার অশোকনগরে

করোনা প্রকোপ খানিক শান্ত হতে না হতেই এই শীতের মরসুমে নাট্যপিপাসু দর্শকদের কাছে সবচেয়ে আনন্দের বিষয় কলকাতা সহ পশ্চিমবঙ্গের বিভিন্ন প্রান্তে অনুষ্ঠিত হওয়া নাট্যোৎসবে...

“পাই” এর উৎসবে মাতলো কলকাতা। ২০ থেকে ২৬ শে জানুয়ারি পর্যন্ত চললো সেলিব্রেশন

কলকাতায় গল্ফগ্রীনে পুরো সপ্তাহ ধরে চললো "পাইয়ের উৎসব"। "দ্য পাই হাউসের" পক্ষ থেকে আন্তর্জাতিক পাই ডে উপলক্ষে ২০ থেকে ২৬ শে জানুয়ারি সেলিব্রেট করা...

কলকাতা প্রেক্ষাপট এর নাট্য – পার্বণ

ভারতীয় সংকৃতির পীঠস্থান আমাদের এই বাংলা । নাট্যচর্চা বাংলার তথা ভারতীয় সংস্কৃতির এক অভূতপূর্ব ধারাকে বহন করে নিয়ে চলেছে প্রাচীনকাল থেকেই । বরাবরই বিভিন্ন...

সুযোগ পেলে আমিও স্বাস্থ্য সাথীর কার্ড করাবো” বললেন দিলীপ ঘোষ

মাননীয় মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের উন্নয়নে এবার সামিল রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। স্বাস্থ্য সাথীর কার্ড করেছেন দিলীপ ঘোষ ও তার পরিবার এমনই দাবি করলেন বীরভূম...